Ads

ডেডপুল ২ রিভিউ

MD. ALAL HOSSAIN

ডেডপুল ২০১৬ সালে ১২ ফেব্রুয়ারিতে বিশ্ববাপি রিলিজ পায়। চলচিএটি পরিচালনা করেন টিম মিলার। ছবিটি তৈরিতে মোট খরজ করা হয় ৫৮ মিলিয়ান মার্কিন ডলার। যা বক্স অফিস এ মোট আয় করে ৭৮৩.১ মিলিয়ান মার্কিন ডলার। ছবিটি মুক্তির পর ব্যাপক জনপ্রিয় প্রায়। ছবিটি মার্ভেল কমিক বুক কাহিনির উপর ভিওি করে নির্মিত করা হয়। এতে ভিনয় করেন ওয়েড উইলসন / ডেডপুল (রায়ান রেইনল্ডস), মরেনা ব্যাকারিন (কপিক্যাট), টিজে মিলার, গিনা কারানো, এড স্ক্রিন, স্ট্যান লি, করণ সোনি এবং আরো অনেকে।

২০১৬ সালে  ডেডপুল মুভির সাফল্যের পর ২০১৮ সালে ডেডপুল ২ মুভিটি রিলিজ করা হয়। যা ১০ মে ডেডপুল ২ মুভিটি মুক্তি পায়। একই দিনে ছবিটি বাংলাদেশে রিলিজ দেওয়া হয়। চলচিএটি পরিচালনা করেন ডেভিড লেইটেক্স। চলচিএটি তৈরি করতে ৫টি কোম্পানি এক সাথে কাজ করেছে। সে ৫টি উৎপাদন কোম্পানির নামগুলো হচ্ছে মার্ভেল এন্টারটেনমেন্ট, ২০টি শ্রেণটি ফক্স, টিএসজি এন্টারটেনমেন্ট, জেনার ফিল্মস, দ্য ডোনন্স ‘কোম্পানি।

মুভিটির প্রযোজনা করেন ওয়েড উইলসন/ডেডপুল (রায়ান রেইনল্ডস), সাইমন কির্গবার্গ, লরেন শুলার ডোনার। মুভিতে অভিনয় করেন রায়ান রেনল্ডস, পল ওয়েঞ্চিক, রাইট রিজ, রব লিফেল্ড, ফেবারিয়ান নিকিয়া ছারাও আরো অনেকে। চলচিএটি তৈরি করতে মোট ১১০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ব্যয় করা হয়। ইতিমধ্যে ছবিটি বিশ্বব্যাপী ৩৬৩.৯ মার্কিন ইউএসডি আয় করে, যার মধ্যে শুধুমাএ আমেরিকাতে ১২৫.৫ মার্কিন ডলার।

এবার ফিরে আসা যাক মূল বিষয়ে, ডেডপুল মুভিটি একটি সুপার হিরোর মুভি। চলচিএটি অন্যান্য সুপার হিরো মুভির মত এটি নয়। এটি একটু ব্যতিক্রম চলচিএ। চলচিএটিতে হ্যাসি-তামাশা, একশান  যুক্ত একটি ছবি। এ মুভির প্রধান চরিেএ অভিনয় করেন রায়ান রেনল্ডস(ডেডপুল)। ছবিটির শুরুতে দেখা যায় ডেডপুল বিভিন্ন সন্ত্রাসীদের সাথে যুদ্ধে নিজেকে জড়িয়ে ফেলে। এর এক যের ধরে ডেডপুল এর গার্লফ্রেন্ড মারা যায়। এবং ডেডপুল নিজেকে শেষ করার ব্যর্থ চেষ্টা করে। ডেডপুলকে এক্স-ম্যানরা রক্ষা করে নিয়ে যায়।

ছবিটির মূল কাহিনী তখনি শুরু হয় যখন মিউট্যান্ট ক্যাবল (জোশ ব্রোলিন) একটি শিশুকে হত্যা করার জন্য ভবিষ্যতে ভ্রমণ করে এবং ডেডপুল ঐ সুপার-পাওয়ারেড মিউট্যান্ট শিশুকে বাচানোর চেষ্টা করে।

মুভির এক পর্যায়ে ডেডপুল ক্যাবল এর হাত থেকে শিশুকে রক্ষা করার জন্য নিজের সুপারহিরো “এক্স-ফ্রোর্স” নামে একটি গ্রুপ খুলে।

ডেডপুল ২ মুভিতে হাস্যকর, কমেডি এবং একশ্যান সম্বলিত, যা দর্শকদের পছন্দ হবে। ছবিটির শুরুর দিকে কিছু একশ্যান এবং রোমান্টিক দৃশ্য রয়েছে। এর পরের দৃশ্য হবে স্মৃতিঘণ। এর পরের দৃশ্য থেকে মুভির মুলপর্ব শুরু হয়। এখান থেকে দর্শকরা বিভিন্ন হাস্যকর দৃশ্য দেখতে পাবেন।

ক্যাবল যখন ভবিষ্যত থেকে আসার দৃশ্যটা ছিল দেখার মত। এবং ডেডপুল এবং ক্যাবল এর কিছু একশ্যানও ছিল দারুণ । তাদের একটি একশ্যান দৃশ্যটি ছিল এক্স-মেন অরিজিন্স: ওলভারাইন মুভির ওয়েড উইলসন (রায়ান রেইনল্ডস)-এর একশ্যান দৃশ্যের মত, কিন্তু পূর্বের ঐ-দৃশ্যের চাইতে ডেডপুল ২ ছবির একশ্যান দৃশ্যটি ছিল দারুন যা দর্শকরা পছন্দ করবে।

সর্বশেষ বলা যায় মুভিটি দর্শকদের মন জয় করবে এবং বক্স অফিসে ছবিটি ভাল ব্যবসা করবে। মুভিটির সবদিক বিবেচণা করে ৫ এর মধ্যে ৩.৫ রেটিং পাওয়ার যোগ্য।

মুভিটির আরো সিকুয়াল ভবিষ্যত দেখা যাবে। কিন্তু কবে নাগাদ ডেডপুল ৩ মুভিটি রিলিজ পাবে তা এখন নির্দিষ্ট করে বলা কঠিন। কিন্তু আমাদের আরো কিছু সময় অপেক্ষা করতে হবে।

Related

xiaomi foldable phone
oppo a7
oppo find x
superman